বাধাইড় ইউপির বহরইল বরেন্দ্র স্কুলে সরকারি সাইকেল আত্মসাৎতের গুঞ্জন

লীড শিক্ষা

তানোর প্রতিনিধি: স্কুলের সভাপতি হওয়ার পরে বিতরণ করা হবে বাইসাইকেল। সেজন্য ছয় মাস ধরে ফেলে রাখা হয়েছে সরকারের দেয়া প্রায় ৩০টি মত নতুন বাইসাকেল। সাইকেল গুলো দীর্ঘদিন ধরে অযত্নে অবহেলায় পড়ে থাকায় জং লেগে মরচেধরা শুরু হয়েছে। স্থানীয় অনেকে বলছেন বাইসাইকেল গুলো স্কুলের প্রধান শিক্ষক লুৎফর রহমান ও ইউপি চেয়ারম্যান আতাউর আত্মসাৎ করার উদ্দেশ্য বাইসাইকেল গুলো শিক্ষার্থীদের না দিয়ে স্কুলের কক্ষে অযত্নে অবহেলায় রেখে দিয়েছে।

জানা গেছে, বাধাইড় ইউপির বহরইল বরেন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের মাঝে দেয়া মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার উপহার বাইসাইকেল শিক্ষার্থীদের না দিয়ে আত্মসাৎ করার উদ্দেশ্য রাখা দীর্ঘ ৬মাস ধরে ফেলে রেখেছে। স্কুলের প্রধান শিক্ষক ও ইউপি চেয়ারম্যান অবৈধ সুবিধার মাধ্যমে স্কুলের মেধাবী ছাত্র ছাত্রীদের বাইসাইকেল গুলো না দিয়ে ব্যাক্তিগত পক্ষের শিক্ষার্থীদের দেয়া হয়। এতে করে একজন মানুষ গড়ার কারিগর ও একজন মানুষের সেবক জনপ্রতিনিধি হয়ে এমন জঘন্য চাঞ্চল্যকর ঘটনায় এলাকাজুড়ে দেখা দিয়েছে চাঞ্চল্য ও বইছে সমালোচনার ঝড়।

সেই সাথে তদন্ত সাপেক্ষে জেলা প্রশাসক (ডিসি)’র কাছে দোষী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন শিক্ষার্থীদের অভিভাবক সহ এলাকার সচেতন মহল। বহরইল বরেন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক লুৎফর রহমানের কাছে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দেয়া উপহারের বাইসাইকেল গুলো শিক্ষার্থীদের কেন দেয়া হয়নি জানতে চাইলে তিনি জানান, বাইসাইকেল গুলো করোনা কালে এলজিএসপি সংস্থা থেকে দেয়া হয়।

কিন্তু স্কুলের ম্যানেজিং কমিটি না থাকায় ইউপি চেয়ারম্যান আতাউর রহমান বাইসাইকেল গুলো বিতরণ করতে নিষেধ করেছেন। চেয়ারম্যান আতাউর রহমান কমিটির সভাপতি নির্বাচিত হওয়ার পরে বাইসাইকেল গুলো বিতরণ করা হবে। তাই কমিটি গঠনের অপেক্ষায় আছি আমরা। তিনি যেই দিন সভাপতি হবেন সেইদিন সাইকেল গুলো বিতরণ করা হবে বলে তিনি জানান। এবিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান আতাউর রহমানের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি সব অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, আমি ইউপি চেয়ারম্যান হিসেবে এই স্কুলের সভাপতি হতে চলেছি, তাই সাইকেল গুলো আপাতত বিতরণ বন্ধ রাখা হয়েছে। মাস তিনেকের মধ্যে কমিটি গঠন হলে সাইকেল গুলো বিতরণ করা হবে। সমাজে ভালো কিছু করতে হলে আওয়ামী লীগ দলীয় চেয়ারম্যান হিসেবে একটুখানি ক্ষমতা দেখাতে হয় বলে দম্ভোক্তি দেখান। এবিষয়ে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে একাধিক যোগাযোগের চেষ্টা করে পাওয়া যায়নি।

 

 

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *