আরিয়ানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের প্রমাণ মেলেনি

বিনোদন

স্বদেশবাণী ডেস্ক : মাদক মামলায় প্রাথমিকভাবে আরিয়ান খানের জড়িত থাকার কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন বোম্বের আদালত।
আরিয়ান খান মুম্বাইয়ের আর্থার রোড জেল থেকে ছাড়া পান ৩১ অক্টোবর। শনিবার সেই জামিন আদেশেরই বিস্তারিত প্রকাশ করেছেন বোম্বে হাইকোর্ট।

বিচারপতি নীতিন সামব্রে জানিয়েছেন, অভিযুক্ত ব্যক্তিদের কাছে বাণিজ্যিকভাবে ব্যবহারের জন্য মাদক পাওয়া গিয়েছে, তার অর্থ এই নয় যে তাদের অপরাধের ইচ্ছাও ছিল। মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ ব্যুরোর (এনসিবি) পক্ষ থেকে যে দাবি করা হয়েছে, তা খারিজ করে দেওয়া হচ্ছে। হাইকোর্ট জানিয়েছেন, অভিযুক্ত ব্যক্তিরা ওই প্রমোদতরিতেই যাচ্ছিলেন—শুধু এর ওপর ভিত্তি করে তাদের বিরুদ্ধে মাদক আইনের ২৯ ধারা প্রয়োগ করা যাবে না।

আরিয়ানের হোয়াটসঅ্যাপ কথোপকথনে কোনো ষড়যন্ত্রের প্রমাণ পাওয়া যায়নি। আদেশে বলা হয়েছে, শাহরুখ খানের ছেলের ফোনের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটে যা পাওয়া গেছে, তা খুঁটিয়ে পর্যালোচনা করে এমন কিছু পাওয়া যায়নি, যা থেকে বোঝা যায় যে আরিয়ান, আরবাজ ও মুনমুন বা অন্য কেউ অভিযুক্ত ব্যক্তিদের সঙ্গে নিয়ে কোনো ষড়যন্ত্র করছিল। যেহেতু ষড়যন্ত্রের কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি, তাই ৩৭ ধারায় জামিনের কঠোর নিয়ম কার্যকর হবে না।

 

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *