যুক্তরাষ্ট্রে চাকরি নিলেন প্রিন্স হ্যারি

আন্তর্জাতিক

স্বদেশবাণী ডেস্ক:  যুক্তরাষ্ট্রের কোচিং অ্যান্ড মেন্টাল হেলথ ফার্ম ‘বেটারআপ’-এর চিফ ইমপ্যাক্ট অফিসার হিসেবে চাকরি শুরু করতে যাচ্ছেন ব্রিটিশ রাজ পরিবারের প্রিন্স হ্যারি। এক বিবৃতিতে হ্যারি নিজেই এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন। এই খবর বিবিসি’র।

ব্রিটিশ রাজ পরিবার ছেড়ে গত বছরের মার্চ থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস করছেন ডিউক অব সাসেক্স হ্যারি। এবার তিনি সেখানে নতুন চাকরিতে যোগ দিতে যাচ্ছেন।

বিবৃতিতে হ্যারি জানান, তার নতুন কাজটি হলো মানসিক স্বাস্থ্যঝুঁকিতে থাকা লোকদের জন্য একটি সহানুভূতিশীল সম্প্রদায় তৈরি করা। যেখানে তাদের সঙ্গে সৎ ও সহনীয় পরিবেশে কথোপকথনের সুযোগ থাকবে।

চলতি মাসের শুরুতে হ্যারি ও তার স্ত্রী মেগান ব্রিটিশ রাজপরিবার নিয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বিখ্যাত উপস্থাপিকা ওপরা উইনফ্রের কাছে এক বিস্ফোরক সাক্ষাৎকার দিয়েছিলেন। এর রেশ কাটতে না কাটতেই ব্রিটিশ রাজপুত্রের নতুন এই চাকরির খবর এলো।

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মার্কিন অঙ্গরাজ্য সান ফ্যান্সিস্কোতে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান অফিসে বসবেন প্রিন্স হ্যারি। তবে তিনি সেখানে কতটা সময় দেবেন, কী পরিমাণ পারিশ্রমিক পাবেন এবং তার কাজ কী হবে তা বিস্তারিত জানা যায়নি।

তবে ‘বেটারআপ’ প্রিন্স হ্যারিকে তাদের প্রতিষ্ঠানে যে পদে বসাতে যাচ্ছে; সেই পোস্ট করপোরেট দুনিয়ার প্রতিষ্ঠানগুলোতে খুবই কম দেখা যায়। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালে এমন পদ রয়েছে।

২০১৩ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় ‘বেটারআপ’। প্রতিষ্ঠান কাজ হলো মোবাইলভিত্তিক পেশাদার কোচিং, কাউন্সেলিং এবং পরামর্শ দেওয়া। বর্তমানে ৬৬টি দেশে ৪৯টি ভাষায় তাদের কার্যক্রম চলছে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *