যুক্তরাষ্ট্রে ৫ জনকে গুলি করে হত্যার পর ফুটবলারের ‘আত্মহত্যা’

আন্তর্জাতিক

স্বদেশবাণী ডেস্ক: চিকিৎসকসহ পাঁচজনকে গুলি করে হত্যার পর ‘আত্মহত্যা’ করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় ফুটবল লিগের (এনএফএল) সাবেক খেলোয়াড় ফিলিপ অ্যাডামস।

দেশটির সাউথ ক্যারোলাইনা অঙ্গরাজ্যের রকহিল শহরে স্থানীয় সময় বুধবার এ হত্যাযজ্ঞে মেতে ওঠেন ফুটবলার ফিলিপ অ্যাডামস।  এর পর পুলিশের সঙ্গে গুলিবিনিময়কালে আত্মহননের পথ বেছে নেন ফিলিপ।

স্থানীয় পুলিশের বরাত দিয়ে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছে যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংবাদমাধ্যম সিএনএন।

সংবাদমাধ্যমটি জানিয়েছে, বুধবার বিকাল পৌনে ৫টায় সাউথ ক্যারোলাইনার ইয়র্ক কাউন্টির রকহিল শহরের মার্শাল রোডের একটি বাড়িতে গোলাগুলি চলছে বলে খবর পায় পুলিশ।  তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে গিয়ে তারা দেখেন বাড়িটির ভেতরে ওই এলাকার খ্যাতনামা চিকিৎসক রবার্ট লেসলি (৭০), তার স্ত্রী বারবারা লেসলি (৬৯), তাদের নাতি আডাহ লেসলি (৯), নাতনি নোয়াহ লেসলি (৫) এবং পরিবারের কর্মী জেমস লেউয়িসের গুলিবিদ্ধ মৃতদেহ পড়ে আছে।

এ সময় চিকিৎসক লেসলির পাশের বাড়িতে ঘাতক সাবেক এনএফএল খেলোয়াড় ফিলিপ অ্যাডামসের অবস্থান শনাক্ত হয়। তাকে গ্রেফতার করতে গেলে অ্যাডামস গুলি ছোড়েন।  একপর্যায়ে নিজের গুলিতেই মারা যান তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ জাতীয় লিগে একাধিক দলের হয়ে ডিফেন্ডারের ভূমিকায় খেলেছেন ফিলিপ অ্যাডামস।

কী কারণে চিকিৎসক লেসলিসহ তার পরিবারের সবাইকে হত্যা করলেন ফিলিপ, সে সম্পর্কে কোনো তথ্য জানতে পারেনি পুলিশ।

ইয়র্ক কাউন্টি পুলিশের প্রধান কেভিন টলসন সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা এখনও কিছুই বুঝে উঠতে পারছি না যে, সাবেক ফুটবল তারকা কেন এই বর্বরোচিত হত্যাকাণ্ড ঘটিয়ে নিজেও আত্মহত্যা করলেন।’

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় এক ব্যক্তি সংবাদ সংস্থা এপিকে জানিয়েছেন, ফিলিপ অ্যাডামসের চিকিৎসক ছিলেন নিহত ডা. রবার্ট লেসলি। কিছু দিন আগেও ফিলিপকে চিকিৎসা দিয়েছিলেন লেসলি।

এদিকে স্থানীয়ভাবে অত্যন্ত পরিচিত চিকিৎসক রবার্ট লেসলিকে হত্যার এমন হৃদয়বিদারক ঘটনায় সাউথ ক্যারোলাইনাজুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *