যুক্তরাষ্ট্রের যুদ্ধজাহাজ আটকাল ইরানের স্পিডবোট

আন্তর্জাতিক

স্বদেশবাণী ডেস্ক: ইরানের এলিট ফোর্স ইসলামিক রেভল্যুশনারি গার্ডের (আইআরজিসি) স্পিডবোট যুক্তরাষ্ট্রের একটি জাহাজ আটকানোর দাবি করেছে। পারস্য উপসাগরে এই ঘটনা ঘটেছে বলে বৃহস্পতিবার ইরানের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন খবর প্রকাশ করেছে।

তবে যুক্তরাষ্ট্রের নৌবাহিনীর একজন মুখপাত্র বলেছেন, গত কয়েক দিনে এমন কোনো ঘটনা ঘটেছে বলে তিনি জানেন না।

বৃহস্পতিবার ইরানের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন আইআরজিসির একটি স্পিডবোট থেকে ধারণকৃত ভিডিও প্রকাশ করে। এতে দেখা যায়, যুক্তরাষ্ট্রের পতাকাধারী একটি জাহাজকে ইসলামিক রেভল্যুশনারি গার্ডের স্পিডবোট তাড়া করছে। ভিডিওটিতে ফার্সি ভাষায় বলতে শোনা যায়, ‘তাদের ধর।’ তবে কখন এই ঘটনা ঘটেছে খবরে সেটা বলা হয়নি।

আল-আরাবিয়ার খবরে বলা হয়েছে, এমন এক সময় এই ঘটনা ঘটল যখন পরমাণু কর্মসূচি নিয়ে যুক্তরাষ্ট্র ও ইরানের মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। যুক্তরাষ্ট্র-ইরান পরমাণু উত্তেজনা সমাধান করতে গত এপ্রিল মাস থেকে ভিয়েনায় পাঁচ শক্তিশালী দেশের সঙ্গে ছয় দফা সংলাপে বসেছিল। তবে ওই সংলাপ থেকে চুক্তিতে পৌঁছানোর মতো ফলাফল আসেনি।

ইরানের এলিট ফোর্স কর্তৃক যুক্তরাষ্ট্রের জাহাজ আটকানোর বিষয়ে জানতে চাইলে মার্কিন নৌবাহিনীর অন্যতম মুখপাত্র কমোডর তিমোথি হকিন্স বলেন, গত দুই দিনে ইরানের সঙ্গে কোনো অনিরাপদ মুখোমুখি হওয়ার ঘটনা ঘটেছে এমন তথ্য তিনি জানেন না।

গত মে মাসে যুক্তরাষ্ট্র অভিযোগ করেছিল, হরমুজ প্রণালীতে তাদের একটি যুদ্ধ জাহাজের দিকে ইরানের আটটি দ্রুত গতির স্পিডবোট ধেয়ে আসছিল। তবে ইরান এই ঘটনা অস্বীকার করে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *