টেসলার নয় লাখ শেয়ার বিক্রি করলেন মাস্ক

আন্তর্জাতিক

স্বদেশবাণী ডেস্ক : এলন মাস্ক তার ইলেকট্রিক গাড়ি তৈরির কোম্পানি টেসলার নয় লাখ শেয়ার বিক্রি করে দিয়েছেন। এর আগে টুইটারে তিনি রায় নিয়েছিলেন, কোম্পানির ১০ শতাংশ শেয়ার বিক্রি করবেন কিনা, তা নিয়ে। তবে নথিপত্র এটা প্রমাণ করছে যে, রায় নেয়ার আগে থেকেই তিনি বিক্রির প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছিলেন। খবর ডয়চে ভেলের।

মাস্ক অবশ্য জানিয়েছিলেন, টুইটারে মানুষ যে রায় দেবে, তিনি সেটাই করবেন। টুইটারের রায় বিক্রির পক্ষে যায়। তারপরই সোমবার টেসলার শেয়ারের দাম পড়ে যায়। কম দামে শেয়ার বিক্রি করেন মাস্ক।

তিনি যদি এ ঘোষণা না দিয়ে শেয়ার বিক্রি করতেন, তাহলে আরও অনেক বেশি অর্থ পেতে পারতেন। তবে এরপরও মাস্কের হাতে ১৭ কোটি শেয়ার আছে। আর এ নয় লাখ শেয়ার বিক্রি করে কর মেটাবেন তিনি।

বুধবার যে ডকুমেন্ট সামনে এসেছে, তাতে দেখা যাচ্ছে, টুইটার সমীক্ষার আগেই বিক্রির প্রক্রিয়া শুরু হয়ে গিয়েছিল। গত ১৪ সেপ্টেম্বর বিক্রির প্রক্রিয়া শুরু হয়।

এ প্রসঙ্গে এলন মাস্ক বলেন, ‘আমার কাছে শুধু শেয়ার আছে। তাই ব্যক্তিগতভাবে কর দিতে হলে আমাকে শেয়ার বিক্রি করতেই হতো।’

টেসলা তাকে কোনো বেতন দেয় না। অবশ্য ফোর্বস পত্রিকার তথ্য অনুযায়ী, মাস্ক হলেন বিশ্বের সব চেয়ে ধনী মানুষ এবং তার সম্পদের পরিমাণ ২৮২ বিলিয়ান ডলার। এ সম্পদের অধিকাংশই টেসলার শেয়ার।

টুইটার সমীক্ষার ফলাফল ছিল, ৩৫ লাখ মানুষ এতে অংশ নেন। ৫৮ শতাংশ শেয়ার বিক্রির পক্ষে রায় দেন। মাস্কের শেয়ার বিক্রি নিয়ে টুইট ছিল প্রস্তাবিত একটি আইন নিয়ে। যুক্তরাষ্ট্রের ডেমোক্র্যাটরা এ আইনের পক্ষে। প্রস্তাবিত আইনটি হলো, শেয়ার বিক্রি না করলেও শেয়ারের দাম বাড়লে বাড়তি কর দিতে হবে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *