‘এবার টার্মিনেটর ট্যাংক মোতায়েন করেছে রাশিয়া’

আন্তর্জাতিক লীড

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: রাশিয়া ইউক্রেনে বিএমপি-টি টার্মিনেটর ট্যাংক মোতায়েন করেছে বলে ব্রিটিশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে। ওই ট্যাংক মোতায়েন পূর্বাঞ্চলীয় শহর সেভেরোদোনেৎস্ক ঘিরে লড়াইয়ের তীব্রতার আরেকটি প্রতিফলন বলে ব্রিটিশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে রোববার বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে।

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, টার্মিনেটর ট্যাংকের ব্যবহারের ফলে মনে করা হচ্ছে রাশিয়ার সেন্ট্রাল গ্রæপিং অব ফোর্সও ওই অঞ্চলে উপস্থিত। রাশিয়ার ওই বাহিনী যুদ্ধের শুরুর দিকে কিয়েভের আশেপাশের অঞ্চলে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির মুখোমুখি হয়েছিল বলে বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

আফগান ও চেচেন যুদ্ধের পর যুদ্ধ ট্যাংককে সুরক্ষা দেওয়ার জন্য টার্মিনেটর তৈরি করা হয়েছিল। তবে কিন্তু দশটির বেশি ট্যাংক মোতায়েন না থাকায় চলমান যুদ্ধে সেটা উল্লেখযোগ্য প্রভাব ফেলবে না বলেই মনে করা হচ্ছে।

এর আগে, ইউক্রেনে যুদ্ধক্ষেত্রে পেরেসভেট নামে লেজার অস্ত্র ব্যবহার করছে, এমন দাবি করেছিলেন রাশিয়ার উপ-প্রধানমন্ত্রী ইউরি বরিসভ।

রাশিয়ার সামরিক মোতায়েনের দায়িত্বে থাকা উপ-প্রধানমন্ত্রী ইউরি বরিসভ বুধবার মস্কোতে এক সংবাদ সম্মেলনে জানান, কথিত লেজার অস্ত্র পেরেসভেট ইতোমধ্যে ব্যাপকভাবে মোতায়েন করা হচ্ছে এবং পৃথিবী থেকে দেড় হাজার কিলোমিটার উঁচুতে থাকা স্যাটেলাইটকে অন্ধ করে দিতে পারে এই অস্ত্র।

তিনি জানান, যদিও এই মুহূর্তে রাশিয়ার কাছে পেরেসভেটের তুলনায় আরও শক্তিশালী লেজার অস্ত্র রয়েছে। যেগুলো ড্রোন ও অন্যান্য সরঞ্জামকে পুড়িয়ে দিতে পারে।
বরিসভ জানান, মাত্র ৫ সেকেন্ডের মধ্যে ৫ কিলোমিটার দূরে থাকা ইউক্রেনের একটি ড্রোন পুড়িয়ে দিতে সক্ষম হয় এ অস্ত্র।

স্ব.বা/বা

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *