পরকীয়ার অভিযোগে বিধবার মাথা ন্যাড়া, গ্রেফতার ৪

জাতীয়
স্বদেশ বাণী ডেস্ক: ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে পরকীয়ার অভিযোগে এক বিধবা নারীকে (৪৫) চুল কেটে মাথা ন্যাড়া করে নির্যাতন করার একটি ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।
বৃহস্পতিবার বিকালে এ ঘটনায় চুল কর্তনকারী রাশিদা বেগমসহ ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় শুক্রবার ভিকটিম বাদী হয়ে ৬ জনের নাম উল্লেখ করে সরাইল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। শুক্রবার সকালে আসামিদের ব্রাহ্মণবাড়িয়া আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ভুক্তভোগী ওই নারীর বিয়ে হয় ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সদর উপজেলায়। তার স্বামী মারা যাওয়ায় তিনি বর্তমানে বিধবা। স্বামীর মৃত্যুর পর স্বামীর বাড়িতেই বসবাস করছেন তিনি। এরই মাঝে জেলার সরাইল উপজেলার নোয়াগাঁও ইউনিয়নের তেরকান্দা গ্রামের মৃত জাহের আলীর ছেলে তার চেয়ে বয়সে ছোট মেরাজুলের (৩৫) সঙ্গে পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়ে বলে অভিযোগ উঠে। বিষয়টি মেরাজুলের স্ত্রী তানজিনা আক্তার জানতে পারেন এবং এ নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে প্রায়ই ঝগড়াবিবাদ হতো।

গত ২২ জুলাই ওই ভুক্তভোগী নারীর সঙ্গে মেরাজুলের স্ত্রী তানজিনা আক্তার যোগাযোগ করে বাড়িতে আসতে বলেন। সেখানে তানজিনা ও তার বোন রাশিদাসহ কয়েকজন মিলে তাকে মারধর করে এবং মাথার চুল কেটে ব্লেড দিয়ে ন্যাড়া করে দেয়। এ সময় ঘটনাটি তারা ভিডিও করে রাখে। সেই ভিডিও বৃহস্পতিবার ফেসবুকের একটি আইডি থেকে পোস্ট করা হয়।

এ বিষয়ে সরাইল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) কবির হোসেন বলেন, ঘটনাটি জানতে পেরে অভিযান শুরু করে পুলিশ। এ ঘটনায় তাৎক্ষণিক তানজিনার বোন রাশিদা বেগমসহ ৬ জনকে গ্রেফতার করেছি।
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *