শেরপুরের নালিতাবাড়ি উপজেলার দাওধারা গ্রামে বন্যহাতির আক্রমনে এক প্রতিবন্ধি যুবক আহত

জাতীয়
শেরপুর সংবাদদাতাঃ শেরপুর জেলার  নালিতাবাড়ী উপজেলার নয়াবিল ইউনিয়নের দাওধারা গ্রামে ভারত থেকে আসবন্যহাতির আক্রমনে হযরত আলী (২৫) নামে এক যুবক গুরুতর আহত হয়েছে। সে নালিতাবাড়ী উপজেলার দাওধারা কাটাবাড়ী এলাকার মোহাম্মদ আলীর মানসিক প্রতিবন্ধি ছেলে। শনিবার (১৯ মার্চ) দুপুরের দিকে সীমান্তবর্তী দাওধারা এলাকার গহীন পাহাড়ে এই ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, গত দুই সপ্তাহ ধরে খাদ্যের সন্ধানে লোকালয়ে হানা দিচ্ছে বন্যহাতির দল। খেয়ে সাবাড় করছে বোরো ফসলের মাঠ। বিনষ্ট করলে গাছপালা। শাবকসহ ২২-২৫টি বন্যহাতির একটি দল উপজেলার দাওধারা-কাটাবাড়ী এলাকার পাহাড়ে অবস্থান করছে। হাতির দলটি পাহাড়ের গহীন জঙ্গলে থাকলেও বেশিরভাগ সময় বন বিভাগের সামাজিক বন ও পাহাড়ী টিলার মাঝখানে থাকা বোরো ধানের ক্ষেতে হানা দিয়ে চলেছে।
আহতের মা জয়গন বেগম জানান, শনিবার দুপুরে তাদের মানসিক প্রতিবন্ধী ছেলে হযরত আলী বাড়ী থেকে বেড়িয়ে পাহাড়ের গহীনে চড়াতে দেওয়া গরুর খোঁজ নিতে গেলে খাদ্যের সন্ধানে নেমে আসা বন্যহাতি তার উপর আক্রমণ চালায়। তাকে শুঁড় দিয়ে পেচিয়ে এবং বা দিয়ে পিষে গুরুতর জখম করে। এসময় আহত হযরত আলী ও হাতির চিৎকার শোনে পাহাড়ে গরু চড়াতে যাওয়া সৈয়দ আলী ও মোখলেছসহ অন্যরা গিয়ে তাকে উদ্ধার করে। পরে নালিতাবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন।
বিষয়টি নিশ্চিত করে বন বিভাগের মধুটিলা রেঞ্জকর্মকর্তা আব্দুল করিম জানান, আমরা ইতিমধ্যেই আহতদের পরিবারের সাথে যোগাযোগ করেছি। আবেদন সাপেক্ষে নিয়ম অনুযায়ী আহত ব্যক্তিকে এক লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে। এছাড়া বন্যহাতি দ্বারা যে কেউ যে কোন ধরণের ক্ষতির শিকার হলে সরকারীভাবে সে ক্ষতিপূরণ দেওয়া হচ্ছে।

স্ব.বা/বা

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *