পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতায় রাজশাহীর অর্জন ধরে রাখতে চাই: মেয়র লিটন

রাজশাহী লীড

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন এলাকার সুষ্ঠু বর্জ্য ব্যবস্থাপনা উন্নয়নের স্বার্থে ও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার সার্বিক কার্যক্রম বিষয়ে সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে নগরভবনের সিটি হল সভাকক্ষে আয়োজিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে মেয়র বলেন, রাজশাহী মহানগরী পরিচ্ছন্ন, সুন্দর, ফুলের শহর। যার প্রশংসা সর্বত্র। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন সভায় রাজশাহীর পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার প্রশংসা করেছেন। এ নগরীর প্রতি আকৃষ্ট হয়ে অন্য জেলার মানুষও এখানে আবাসস্থল গড়তে ইচ্ছা পোষণ করেন। রাজশাহীর এই অর্জন ধরে রাখতে চাই। এ জন্য সংশ্লিষ্ট সবাইকে যথাযথভাবে দায়িত্ব পালন করতে হবে।

মেয়র লিটন আরো বলেন, করোনা মহামারি মধ্যে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের পরিচ্ছন্নকর্মীরা বাড়ি বাড়ি থেকে বর্জ্য সংগ্রহ করেছে। পরিচ্ছন্নতা ধরে রাখতে আমাদের প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। এ ব্যাপারে নগরবাসীর সহযোগিতা কামনা করছি। যত্রতত্র ময়লা আবর্জনা না ফেললে নাগরিকদের অনুরোধ করছি।

মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন আরো বলেন, সুষ্ঠু বর্জ্য ব্যবস্থাপনা উন্নয়নের স্বার্থে সংশ্লিষ্ট সকলকে আরও বেশি দায়িত্বশীল হতে হবে। ওয়ার্ড পর্যায়ে পরিচ্ছন্ন পরিবেশের উন্নয়নে ওয়ার্ড কাউন্সিলর, ওয়ার্ড সচিব, পরিচ্ছন্ন কর্মীদের কাজের সমন্বয় ঘটাতে হবে। মাটি, বালি, রাবিশ ইত্যাদি নির্মাণ সামগ্রী যত্রতত্রভাবে ফেলে না রাখা হয় এ বিষয়ে নাগরিকদের সচেতন করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। প্রয়োজনে অভিযান পরিচালনা করা হবে। পরিচ্ছন্ন কার্যক্রম জোরদারকরণে প্রতিটি ওয়ার্ডে সেকেন্ডারী ট্রান্সফার স্টেশন নির্মাণ করা হবে। মিনি ট্রাকে বর্জ্য অপসারণ কাজ করা হবে।

সভায় মাঠ পর্যায়ের পরিচ্ছন্ন সুপারভাইজার ও ওয়ার্ড সচিবগণ পরিচ্ছন্ন বিভাগের বিভিন্ন সমস্যা বিষয়ে মতামত ব্যক্ত করেন। রাসিকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিনের সভাপতিত্বে আয়োজিত সভায় বক্তব্য রাখেন রাসিকের বর্জ্য ব্যবস্থাপনা স্থায়ী কমিটির সভাপতি, প্যানেল মেয়র-১ সরিফুল ইসলাম বাবু, কমিটির সদস্য ও ১৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর তৌহিদুল হক, ১৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল মোমিন। সভায় স্বাগত বক্তব্য দেন রাসিকের প্রধান পরিচ্ছন্ন কর্মকর্তা শেখ মো. মামুন ডলার।

সভায় রাসিকের ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর কামরুজ্জামান, ৩০নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শহিদুল ইসলাম পিন্টু, ৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর এসএম মাহবুবুল হক পাভেল, ৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর কামাল হোসেন, সচিব আবু হায়াত মোঃ রহমতুল্লাহ, মাননীয় মেয়রের একান্ত সচিব মো. আলমগীর কবির, পরিচ্ছন্ন কর্মকর্তাবৃন্দ, ওয়ার্ড সচিব, সুপারভাইজারবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

স্ব.বা/বা

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *