এমপি বাদশার মৃত্যুর গুজব, নিজেই জানালেন ভালো আছেন

রাজশাহী লীড

স্বদেশবাণী ডেস্ক:  সামাজিক মাধ্যমে গুজবটি ছড়ানো হয় রোববার সকালে। সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে পরিকল্পিতভাবে ছড়ানো হয় ফজলে হোসেন বাদশা এমপি আর নেই। এ নিয়ে রাজশাহীসহ সারা দেশে শুরু হয় তোলপাড়। অনেকেই পরস্পরকে ফোন করে এ খবরের সত্যতা জানতে চান।

পরে এমপি বাদশা নিজেই ফোন করে যুগান্তরসহ বিভিন্ন গণমাধ্যমের সাংবাদিকদের জানিয়েছেন তিনি ভালো আছেন। সুস্থ আছেন।

গত ১৪ এপ্রিল রাজশাহী-২ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশার করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়। একদিন রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে থেকে পরদিনই তাকে বিশেষ ব্যবস্থায় ঢাকায় স্থানান্তর করা হয় উন্নত চিকিৎসার জন্য। তিনি বর্তমানে বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে চিকিৎসাধীন আছেন।

এদিকে রোববার সকাল থেকেই ফজলে হোসেন বাদশার মৃত্যুর খবরটি সামাজিক মাধ্যমে ছড়ানো হয়। কেউবা তার শারীরিক অবস্থা জটিল বলেও গুজব রটায় ফেসবুকে। এসব গুজবকে কেন্দ্র করেই শুরু হয় তোলপাড় সারা দেশে।

ফজলে হোসেন বাদশা এমপির ব্যক্তিগত সহকারী (এপিএস) মইনুদ্দিন আহমেদ রাসেল ফোনে জানান, ফজলে হোসেন বাদশা ভালো আছেন। তিনি রাজশাহীর মানুষের কাছে দোয়া চেয়েছেন। তার অক্সিজেনপ্রবাহ ভালো আছে। তার কৃত্রিম অক্সিজেন নেওয়ার প্রয়োজন হচ্ছে না। তিনি সুস্থ হয়েই রাজশাহীর মানুষের মাঝে ফিরতে চান।

এদিকে ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা এমপির শারীরিক পরিস্থিতি নিয়ে পরিকল্পিতভাবে সামাজিক মাধ্যমে গুজব ছড়ানোয় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে দলটির রাজশাহী মহানগর কমিটি।

ওয়ার্কার্স পার্টির রাজশাহী মহানগরের সাধারণ সম্পাদক দেবাশিষ প্রামাণিক দেবু স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে রোববার বলা হয়, একটি স্বার্থান্বেষী মহল এমপি বাদশার অসুস্থতা নিয়ে অপপ্রচার ও গুজব ছড়াচ্ছে অমানবিকভাবে। যে গুজব মানুষের জীবন-মৃত্যু নিয়ে; যা কারও কাম্য নয়।

পার্টির বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, আমরা ওয়ার্কার্স পার্টি রাজশাহী মহানগর কমিটির পক্ষে রাজশাহীসহ দেশবাসীকে অবগত করতে চাই, গণমানুষের নেতা জননেতা ফজলে হোসেন বাদশা এমপি বর্তমানে ঢাকায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় সুস্থ ও স্বাভাবিক আছেন। আমরা আশা করি তিনি অতি দ্রুত করোনাকে জয় করে রাজশাহীতে ফিরে এসে জনগণের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত হবেন।

তার শরীরে করোনার কোনো লক্ষণও নেই। বিজ্ঞপ্তিতে ফজলে হোসেন বাদশা এমপির শারীরিক পরিস্থিতি নিয়ে কোনো ধরনের গুজবে কান না দেয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট সবার প্রতি অনুরোধ করা হয়েছে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *