প্রতিপক্ষের আঘাতের ১৪ দিন পর হাত কাটা পড়লো হাফিজুরের

রাজশাহী লীড
আল-আফতাব খান সুইট, নাটোর প্রতিনিধিঃ নাটোরের বাগাতিপাড়ায় গত ৭ জুন গাছ থেকে কাঁঠাল পাড়াকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের লোহার রডের আঘাতে ডান হাত খাম জখম হয় হাফিজুর নামে এক কৃষকের। আর সেই আঘাতের ১৪ দিন পর হাফিজুরের ডান হাত কেটে ফেলতে হয়।
মঙ্গলবার (২২ জুন) দিন গত রাতে চিকিৎসকের পরামর্শে রাজশাহী আমানা নামে এক বে-সরকারি হাসপাতালে তার এই হাত কনুইয়ের উপর পর্যন্ত কেটে ফেলা হয়। কৃষক হাফিজুর উপজেলার পাঁচুড়িয়া গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত ৭ জুন দুপুরে উপজেলার পাঁচুড়িয়া গ্রামের জমসেদ খাঁথর ছেলে মোতালেব হোসেন সহ তার লোকজন পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে বসত বাড়ির কাঁঠাল গাছ থেকে জোর করে কাঁঠাল পাড়তে থাকে। এসময় হাফিজুর বাধাঁ নিষেধ করলে প্রতিপক্ষের লোহার রডের আঘাতে হাফিজুরের ডান হাতে গুরুত্বর জখম হয়। এসময় বসত ঘরের দরজা জানালা সহ বিভিন্ন আসবাব পত্র ভাংচুর করে প্রতিপক্ষরা। আহত হাফিজুর প্রথমে পার্শবর্তি লালপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা গ্রহন করে। পরে শারিরিক অবস্থার অবনতি হলে গত শনিবার (১৯ জুন) রাজশাহী আমানা ক্লিনিকে ভর্তি করা হয় তাকে। চিকিৎসকের পরামর্শে মঙ্গলবার (২২ জুন) দিনগত রাতে অপারেশনের মাধ্যমে তার ডান হাত কেটে ফেলা হয়। প্রতিপক্ষের হামলার ঘটনায় গত ১২ জুন আহতের পিতা বাদি হয়ে ২৪ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেন।
এবিষয়ে বাগাতিপাড়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ সিরাজুল ইসলাম বলেন, মামলাটি তদন্তাধীন আছে। অভিযুক্ত আসীরা জামীনে রয়েছে।
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *