বিকালে শ্যালিকা, সন্ধ্যায় দুলাভাইয়ের মৃত্যু

রাজশাহী
স্বদেশ বাণী ডেস্ক: বগুড়ার শাজাহানপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত দুলাভাই ও শ্যালিকা মারা গেছেন। এক সপ্তাহের বেশি চিকিৎসাধীন থাকার পর মঙ্গলবার বিকালে ও সন্ধ্যায় ঢাকার একটি হাসপাতালে তাদের মৃত্যু হয়।
নিহতরা হলেন- বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার মাঝিড়া ইউনিয়নের দাড়িকামাড়িপাড়া গ্রামের আবু বক্কর সিদ্দিকের মেয়ে স্থানীয় স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী জান্নাতি ফেরদৌস মাওয়া (১৩) ও মেয়েজামাই ধুনট উপজেলার ঢেকুরিয়া গ্রামের গোলাম হোসেনের ছেলে বিপ্লব হোসেন রিপন (৩৫)।

স্থানীয়রা জানান, ফুফাতো বোনের বিয়ের অনুষ্ঠানের দাওয়াতে যাওয়ার জন্য মাওয়া গত ২৩ আগস্ট ভগিনীপতি বিপ্লবের সঙ্গে বগুড়া শহরে মার্কেটিং করতে যায়। কেনাকাটা শেষে সন্ধ্যার দিকে তারা শহর থেকে সিএনজি অটোরিকশায় বাড়ি ফিরছিলেন।

পথিমধ্যে শাজাহানপুর উপজেলার সাজাপুর রাধারঘাট এলাকায় ঢাকা-রংপুর মহাসড়কে পৌঁছলে পেছন থেকে একটি ট্রাক ধাক্কা দেয়। এতে টেম্পো দুমড়ে-মুচড়ে গেলে মাওয়া ও বিপ্লব গুরুতর আহত হন। তাদের প্রথমে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে তাদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। চিকিৎসা চলাকালে বিপ্লব কিছুটা সুস্থ হলেও মাওয়ার অবস্থা সংকটাপন্ন ছিল।

আট দিন চিকিৎসাধীন থাকার পর ৩১ আগস্ট বিকালে প্রথমে মাওয়া ও সন্ধ্যায় বিপ্লব মারা যান। এদিকে একসঙ্গে দুইজনের মৃত্যুতে শুধু তাদের পরিবারে নয়; পুরো গ্রামে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।
শাজাহানপুর থানার ওসি আবদুল্লাহ আল মামুন জানান, সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ভগিনীপতি ও শ্যালিকা মঙ্গলবার ঢাকায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। তবে তিনি তাদের সম্পর্কে বিস্তারিত কিছু বলতে পারেননি।
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *