জিআইজেডের উদ্যোগে ইনসেপশন ওয়ার্কসপ এক্সেস টু সোস্যাল সার্ভিস বাই-মান্থলি মিটিং অনুষ্ঠিত

রাজশাহী লীড

স্টাফ রিপোর্টারঃ জিআইজেডের উদ্যোগে আরবান ম্যানেজমেন্ট অব ইন্টারনাল মাইগ্রেশন ডিউ টু ক্লাইমেট চেঞ্জ (ইউএমআইএমসিসি) আরবান ম্যানেজমেন্ট অব মাইগ্রেশন এন্ড লাইভলিহুড (ইউএমএমএল) প্রকল্পের আওতায় ইনসেপশন ওয়ার্কসপ এক্সেস টু সোস্যাল সার্ভিস বাই-মান্থলি মিটিং অনুষ্ঠিত হয়েছে। রোববার দুপুরে নগরভবনের সরিৎ দত্ত গুপ্ত সভাকক্ষে আয়োজিত সভায় সভাপতিত্ব করেন রাসিকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিন।
তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কোন জনগোষ্ঠীকে পিছিয়ে না রেখে সবাইকে নিয়েই এগিয়ে চান। সে লক্ষ্যে দেশের সকল মানুষের জীবনমান উন্নয়নে কাজ করছে সরকার। রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মাননীয় মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন দায়িত্ব গ্রহণের পর রাজশাহী মহাগরীর উন্নয়ন পরিকল্পিতভাবে এ নগরীর উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। সিটি কর্পোরেশন এলাকায় প্রান্তিক জনগোষ্ঠী ও জলবায়ু পরিবর্তনজনিত কারণে ক্ষতিগ্রস্থ মানুষের জীবনমান উন্নয়নে আমরাও কাজ করে যাচ্ছি।

কর্মশালায় বক্তব্য দেন শহর সমাজসেবা কর্মকর্তা মোঃ আশিকুজ্জামান, রাসিকের ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ কামরুজ্জামান, ৩০নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শহিদুল ইসলাম পিন্টু, ১৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর তৌহিদুল হক সুমন, ২৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আশরাফুল হাসান বাচ্চু, ২নং সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর আয়েশা খাতুন, ৭নং সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর উম্মে সালমা, ৯নং সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর লাইলী বেগম, ১০নং সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর সুলতানা রাজিয়া, প্রধান প্রকৌশলী শরিফুল ইসলাম। সঞ্চালনা করেন রাসিকের নগর পরিকল্পনাবিদ বনি আহসান। রাজশাহী মহানগরীতে চলমান প্রকল্পের অগ্রগতির তথ্য উপস্থাপন করেন জিআইজেড ইউএমআইএমসিসি প্রকল্পের কো-অর্ডিনেটর আখতারুজ্জামান রানা।

কর্মশালায় সিটি কর্পোরেশনের সচিব মশিউর রহমান, বিজ্ঞ ম্যাজিষ্ট্রেট ইমরানুল হক, ই-সলভ ইন্টারন্যাশনাল ইন্টারন্যাশনালের কো-অর্ডিনেটর মেহেদী পারভেজ সহ করিতাস, সচেতন ও সমাজসেবা অধিদপ্তরের প্রতিনিধিবৃন্দ অংশগ্রহণ করেন।

উল্লেখ্য, ইউরোপীয়ান ইউনিয়ন, জার্মান সরকার ও বাংলাদেশ সরকারের যৌথ উদ্যোগে পরিচালিত জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে শহরে আশ্রয় নেয়া নির্ধারিত এলাকার দরিদ্র জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নের জন্য ইউএমআইএমসিসি/ইউএমএমএল প্রকল্প রাজশাহী মহানগরীর কয়েকটি ওয়ার্ডে কাজ করছে। এ প্রকল্পের আওতায় ৫টি শহরে ৫ হাজার পরিবারের জীবন মান উন্নয়নে কাজ করছে। কারিগরী দক্ষতা উন্নয়ন ও উদ্যোক্তা উন্নয়ন প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করছে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *