কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ ও শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা কার্যক্রম উপলক্ষে এ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত

রাজশাহী

প্রেস বিজ্ঞপ্তি: আগামী ২০-২৭ মার্চ রাজশাহী মহানগরীতে কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ এবং ২৭ মার্চ থেকে ২ এপ্রিল ক্ষুদে ডাক্তার কর্তৃক শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা কার্যক্রম পালন করবে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন। রোববার সকালে নগরভবন সরিৎ দত্ত গুপ্ত সভাকক্ষে এ উপলক্ষে কেন্দ্রীয় এ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ সরিফুল ইসলাম বাবু।

সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে সরিফুল ইসলাম বাবু বলেন, ভবিষ্যত প্রজন্মকে স্স্থ্যু ও সবলভাবে গড়ে তুলতে তাঁদের কৃমিমুক্ত রাখতে হবে। এ লক্ষ্যে জাতীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে ২০-২৭ মার্চ ২০২২ রাজশাহী মহানগরীতে কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ এবং ২৭ মার্চ থেকে ২ এপ্রিল ক্ষুদে ডাক্তার কর্তৃক শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা কার্যক্রম পালন করবে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন এ কার্যক্রম সফলভাবে বাস্তবায়নে সকলকে একযোগে কাজ করতে হবে। শিশুদের রোগমুক্ত, সুস্থ্য সবলভাবে গড়ে তুলতে তাঁদের স্বাস্থ্য সচেতনতার বিষয়ে জোর দিতে হবে। এজন্য অভিভাবক ও শিক্ষকদের অগ্রণী ভূমিকা রাখতে হবে। কোন শিশু যেন কৃমিনাশক ট্যাবলেট খাওয়া থেকে বাদ না পড়ে সেজন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে আরও বেশি দায়িত্বশীল হতে হবে। এ সকল কার্যক্রম সঠিকভাবে বাস্তবায়ণের ফলে মা ও শিশু মৃত্যু হার কমিয়ে আনা সম্ভব হয়েছে। ফলে স্বাস্থ্যসেবায় সরকারের লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হচ্ছে। ২০২৫ সালের মধ্যে নতুন প্রজন্মকে কৃমি মুক্ত করতে নানা উদ্যোগ গ্রহণ করছে সরকার। রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের বলিষ্ঠ নেতৃত্বে স্বাস্থ্যখাতসহ সকল ক্ষেত্রে রাজশাহী মহানগরী এগিয়ে চলেছে। যা আজ দেশের গন্ডি পেরিয়ে আন্তর্জাতিক অঙ্গণে পরিচিতি লাভ করেছে।

রাসিকের শিক্ষা, স্বাস্থ্য, পরিবার, পরিকল্পনা স্বাস্থ্য রক্ষাব্যবস্থা স্থায়ী কমিটির সভাপতি ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ নূরুজ্জামান টুকুর সভাপতিত্বে আয়োজিত সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন পরিচালক স্বাস্থ্য কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক ডা: নাজমা আখতার। সভায় স্বাগত বক্তব্য ও এ কার্যক্রম সম্পর্কে বিস্তারিত প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন রাসিকের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা: এফ.এ.এম আঞ্জুমান আরা বেগম। সভায় আরো বক্তব্য দেন বিশ^ স্বাস্থ্য সংস্থার বিভাগীয় কো-অর্ডিনেটর ডাঃ কামরুজ্জামান, থানা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার শামীম আহমেদ খান, থানা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা জাহিদ হাসান। সভায় রাসিকের সচিব মশিউর রহমান, পরিবার পরিকল্পনার রাজশাহীর উপ-পরিচালক ডাঃ কস্তুরী আমিনা কুইন, সিভিল সার্জন কার্যালয়ের ডাঃ আব্দুর রাকিবসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহে এবার প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি মাদ্রাসা, মক্তব ও এতিমখানাসহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এ কার্যক্রমের আওতায় নিয়ে আনার লক্ষ্য নিয়ে ৫-১৬ বছর বয়সী বিদ্যালয়গামী ও একই বয়সী বিদ্যালয় বহির্ভূত, ঝরে পড়া, পথ শিশু, কর্মজীবি শিশুসহ সকল শিশুকে এ কার্যক্রমের আওতায় আনা হবে।

স্ব.বা/বা

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *