আস্ত মোবাইল ফোন গিলে ফেললেন যুবক, অতঃপর…

বিশেষ সংবাদ

স্বদেশ বাণী ডেস্ক:  তীব্র পেট ব্যথা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন এক যুবক। পরীক্ষানিরীক্ষার পর ওই যুবকের পেটে বড় কোনো জিনিসের অস্তিত্ব টের পান চিকিৎসকরা। সেই বস্তু অপসারণের জন্য অস্ত্রোপচারের সিদ্ধান্ত নেন তারা। অস্ত্রোপচারের পর দেখা যায়, সেই বড় বস্তু আর কিছুই নয়, একটা নোকিয়া ৩৩১০ মডেলের মোবাইল ফোন সেট।

কসোভোর প্রিস্টিনায় চলতি মাসের শুরুতে এই ঘটনা ঘটে বলে মঙ্গলবার গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে জানা গেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, চিকিৎসকরা প্রায় দুই ঘণ্টাব্যাপী অস্ত্রোপচারের পর ৩৩ বছর বয়সী ওই যুবকের পেট থেকে মোবাইল ফোনটি অপসারণ করেন।

চিকিৎসকরা জানান, পেটের মধ্যে তিনটি অংশে মোবাইল সেটটি ছিল। মোবাইলের ব্যাটারি বিস্ফোরণের ফলে তার প্রাণহানির আশঙ্কা ছিল বলে জানান তারা।

ওই যুবক আপাতত সুস্থ আছেন বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

তবে কেন ওই যুবক আস্ত মোবাইল গিলে ফেলেছিলেন তা জানা যায়নি।ওই যুবক মানসিকভাবে সুস্থ নন বলে ধারণা করছেন চিকিৎসকরা।

অবশ্য মোবাইল গিলে ফেলার ঘটনা এই প্রথম নয়। এর আগে ২০১৪ ও ২০১৬ সালেও একই রকম ঘটনা ঘটেছে। ২০১৬ সালে ২৯ বছর বয়সী এক যুবক তার মোবাইল ফোন সেট গিলে ফেলেছিল। এরপর ক্রমাগত বমি হতে থাকে তার। পরে অস্ত্রোপচারের মাধ্যমেই ফোন সেটটি তার পেট থেকে অপসারণ করেন চিকিৎসকরা।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *