পাকিস্তানের জয় রথ থামিয়ে ইতিহাস সৃষ্টি কতে চায় নামিবিয়া

খেলাধুলা

স্বদেশবাণী ডেস্ক : টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সপ্তম আসরে সুপার টুয়েলভ পর্বে ৩ খেলায় ৩টি জয় তুলে নিয়েছে পাকিস্তান। ফলে সেমিফাইনালের দ্বারপ্রান্তে রয়েছে তারা। আর মাত্র একটি জয় পেলেই সেমির টিকিট নিশ্চিত তাদের। মঙ্গলবার দূর্বল নামিবিয়ার বিপক্ষে সেই জয় তুলে নিয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করতে চায় বাবর আজমের দল। তবে আপসেট ঘটিয়ে পাকিস্তানের জয় রথ থামাতে চায় এবারের বিশ্বকাপে ইতিহাস সৃষ্টি করা নামিবিয়া।

আবু ধাবির জায়েদ ক্রিকেট স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায় বিশ্বকাপের ৩১তম ম্যাচে লড়বে পাকিস্তান ও নামিবিয়া।

দাপুটে জয়ে এবারের বিশ্বকাপ শুরু করেছিলো পাকিস্তান। চিরপ্রতিন্দ্বন্দ্বি ভারতকে ১০ উইকেটে ব্যবধানে হারায় তারা। বিশ্বকাপে প্রথমবারের মত ভারতকে হারিয়ে আত্মবিশ্বাসী পাকিস্তান পরের দুই ম্যাচে যথাক্রমে নিউজিল্যান্ড ও আফগানিস্তানকে ৫ উইকেটের ব্যবধানে হারায়।

নিউজিল্যান্ড ও আফগানিস্তানের বিপক্ষে জয়ের কৃতিত্ব পুরোটাই আসিফ আলির। ব্যাট হাতে শেষদিকে ঝড় তুলে প্রতিপক্ষের হাত থেকে ম্যাচ বের করে আনেন আসিফ। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ১২ বলে অপরাজিত ২৭ এবং আফগানিস্তানের বিপক্ষে ৭ বলে অনবদ্য ২৫ রান করেন আসিফ।

ভারত, নিউজিল্যান্ড ও আফগানিস্তানকে হারিয়ে সেমিফাইনালের দ্বারপ্রান্তে পৌঁছে যাওয়া পাকিস্তানের সামনে এবার সেমির টিকিট নিশ্চিতের পালা।

পাকিস্তানী ব্যাটার ফখর জামান বলেন, ‘জয়ের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রেখে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করাই আমাদের প্রধান লক্ষ্য।’

অন্যদিকে প্রথমবারের মত বিশ্বকাপ খেলতে নেমে বাছাই পর্ব টপকে অপ্রত্যাশিতভাবে সুপার টুয়েলভে উঠে নামিবিয়া। সুপার টুয়েলভে নিজেদের প্রথম ম্যাচে স্কটল্যান্ডকে ৪ উইকেটে হারিয়ে দেয় তারা। তবে দ্বিতীয় ম্যাচে আফগানিস্তানের কাছে ৬২ রানে হারে নামিবিয়া। এতে জয় রথ থামে নামিবিয়ার। বাছাই পর্বের শেষ দুই ও সুপার টুয়েলভে প্রথম ম্যাচসহ টানা তিন ম্যাচ জিতে নেয় নামিবিয়া। এরপর আফগানিস্তানের কাছে পরাজিত হয়। তবে আবারও জয়ের ধারায় ফিরে আপসেট ঘটিয়ে পাকিস্তানের জয়রথ থামাতে মরিয়া নামিবিয়া।

এখন পর্যন্ত টি-টোয়েন্টিতে ২৭ ম্যাচ খেলা নামিবিয়া ২১টি জয় পেয়েছে, পরাজিত হয়েছে ৬ ম্যাচে। তবে আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে পাকিস্তানের বিপক্ষে কখনও খেলেনি নামিবিয়া।

পাকিস্তান দল
বাবর আজম (অধিনায়ক), শাদাব খান, আসিফ আলী, ফখর জামান, হায়দার আলী, হারিস রউফ, হাসান আলী, ইমাদ ওয়াসিম, মোহাম্মদ হাফিজ, মোহাম্মদ নওয়াজ, মোহাম্মদ রিজওয়ান, মোহাম্মদ ওয়াসিম জুনিয়র, সরফরাজ আহমেদ, শাহিন শাহ আফ্রিদি, শোয়েব মালিক।

নামিবিয়া দল
জেরার্ড ইরাসমুস (অধিনায়ক), স্টিফেন বার্ড, কার্ল বিরকেস্টোক, মিচাও ডুপেরেজ, জন ফ্রাইলিঙ্ক, জানে গ্রিন, নিকোল লফি এটন, বার্নার্ডো স্কল, বেন সিকাঙ্গো, জেজে স্মিথ, রুবেন ট্রাম পেলমান, মিচেল ভ্যান লিনগেন, ডেভিড ওয়াইস, ক্রেইগ উইলিয়ামস এবং পিক্কি ইয়া ফ্রান্স।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *