শারদীয় দুর্গাপূজায় সার্বিক আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণে থাকছে আরএমপি

রাজশাহী লীড

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহী মহানগরীতে আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষ্যে নিরাপত্তা ও আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণসহ সার্বিক বিষয়ে মহানগরীর বিভিন্ন পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দের সাথে আরএমপি’র মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২২ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টায় আরএমপি পুলিশ লাইন্স পিওএম কনফারেন্স রুমে অনুষ্ঠিত হয় এই মতবিনিময় সভা। এ সময় সভাপতিত্ব করেন আরএমপি’র পুলিশ কমিশনার মো: আবু কালাম সিদ্দিক।

এবার রাজশাহী মহানগরী এলাকায় পূজামন্ডপের সংখ্যা ৯৫ টি। আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা-২০২২ উদযাপন উপলক্ষ্যে আইন শৃঙ্খলা সংক্রান্তে মতবিনিময় সভায় রাজশাহী মহানগরী এলাকার আইন শৃংখলা পরিস্থিতি যেন স্বাভাবিক থাকে ও প্রতিমা প্রস্তুত করণ, প্রতিমা প্রস্তুত কালীন এবং পূজা চলাকালীন নিরাপত্তার বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়।

সভায় উপস্থিত হিন্দু সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দ আইন শৃংখলা সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয়ে পরামর্শ প্রদান করেন পুলিশ কমিশনার।

পুলিশ কমিশনার তাঁর বক্তব্যে বলেন, দুর্গাপূজাকে কেন্দ্র করে আরএমপি’র পক্ষ থেকে সার্বিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে এবং ইতোমধ্যে গোয়েন্দা তৎপরতা বাড়ানো হয়েছে। তিনি গুরুত্বপূর্ণ পূজামন্ডপগুলোতে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের জন্য নেতৃবৃন্দকে আহবান জানান।

পূজামন্ডপ গুলোতে পুরুষ ও নারীদের জন্য পৃথক প্রবেশ ও নির্গমণ লাইন রাখার এবং পূজা মন্ডপে পুরুষ ও মহিলা আলাদা আলাদা স্বেচ্ছাসেবক রাখার উপর বিশেষভাবে গুরুত্বারোপ করেন। থানার অফিসার ইনচার্জগণকে পূজা কমিটির সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখার নির্দেশ প্রদান করেন এবং ট্রাফিক বিভাগকে ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা জোরদার করার জন্য নির্দেশ প্রদান করেন। যাতে করে দর্শনার্থীরা নির্ভিঘ্নে পূজামন্ডপ দর্শণ করতে পারে।

মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (প্রশাসন) মো: ফারুক হোসেন, উপ-পুলিশ কমিশনার (সদর) মো: সাইফউদ্দীন শাহীন, উপ-পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) অর্নিবান চাকমা, আরএমপি’র ঊর্ধ্বতন পুলিশ অফিসারবৃন্দ, ডিজিএফআই , র‌্যাব-৫, এনএসআই, আনসার ও ভিডিপি, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সে, সিটি কর্পোরেশন, নেশকো লিঃ, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তর এর প্রতিনিধিবৃন্দ সহ সকল থানার অফিসার ইনচার্জগণ এবং টিআই (১)।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, বৃহত্তর রাজশাহীর হিন্দু কল্যাণ ট্রাষ্টের ট্রাষ্টি তপন কুমার সেন, রাজশাহী জেলার বাগমারা উপজেলার চেয়ারম্যান ও রাজশাহী জেলা আওয়ামীলীগ ভারপ্রাপ্ত সভাপতি  অনিল কুমার সরকার এবং রাজশাহী মহানগর হিন্দু, বৌদ্ধ খ্রিষ্ট্রান ঐক্য পরিষদের সেক্রেটারী শ্যামল কুমার ঘোষ, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের সিনিয়র সভাপতি সাধন কুমার রায় , সাধারণ সম্পাদক পার্থ পাল চৌধুরীসহ বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ ও পবার নেতৃত্ববৃন্দ।

স্ব.বা/ম

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published.