চোর সন্দেহে যুবককে গণপিটুনি, পুলিশসহ আহত ৪

জাতীয়

স্বদেশ বাণী ডেস্ক:  কুষ্টিয়ার মিরপুরে চোর সন্দেহে স্বপন (২২) নামের এক যুবককে গণপিটুনি দিয়েছে এলাকাবাসী। এসময় তাদের ছত্রভঙ্গ করতে গিয়ে পুলিশের এসআইসহ চারজন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে পুলিশের কনস্টেবল জামিরুল ইসলাম নামের একজনকে মিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় স্থানীয় ইউপি সদস্য সাইফুল ইসলামসহ ৫জনকে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে মিরপুর উপজেলার আমলা ইউনিয়নের কচুবাড়িয়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মস্তফা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

গণপিটুনির শিকার যুবক স্বপন ভেড়ামারা উপজেলার ফারাকপুর এলাকার মৃত সামসুল হকের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরেই আমলা ইউনিয়নের কচুবাড়িয়া এলাকায় কৃষকদের বৈদ্যুতিক সেচ পাম্প (মোটর) চুরি হয়ে আসছিলো। বুধবার ৪-৫জন মোটর চুরি করতে গেলে তাদের ধাওয়া দিয়ে স্বপনকে আটক করে পিটুনি দেয় এলাকাবাসী।

চোর ধরা পড়েছে এলাকায় এমন খবর ছড়িয়ে পড়লে জড়ো হয় স্থানীয়রা। খবর পেয়ে পুলিশ তাদের ছত্রভঙ্গ করার চেষ্টা করলে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এসময় পুলিশের এসআই হাফিজুর রহমান, এএসআই কামরুজ্জামান কনেস্টবল জামিরুল ইসলাম, সাইফুল ইসলাম আহত হন।

এ ঘটনায় পুলিশ স্থানীয় ইউপি সদস্য সাইফুল ইসলামসমহ ৫জনকে আটক করেছে।

মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মস্তফা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, আহত পুলিশ পুলিশ কনেস্টবল জামিরুল ইসলাম মিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *