উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ভোট করতে চান সরদার আবুল

রাজশাহী লীড

তানোর প্রতিনিধি: আসন্ন পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে রাজশাহীর তানোর উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান পদে ভোট করবেন সাবেক যুবলীগ নেতা আবুল হোসেন সরদার । তিনি দলীয় মনোনায়ন পেলে নৌকা প্রতীক নিয়ে লড়াই করতে চান বলে জানিয়েছেন।তিনি জানান গত ২৯শে জানুয়ারি দলীয় ভাবে প্রার্থী তালিকা জমা নেবার সময় এলাকায় না থাকার কারনে জমা দিতে পারেনি। পরে বিষয়টি স্থানীয় সাংসদকে অবহিত করা হলে তিনি জানান প্রার্থী জমা দেবার ক্ষেত্রে কোন সমস্যা নেয়।

তৃণমূলের নেতাকর্মীরা যাকে মনোনায়ন দিবেন তিনিই নৌকা প্রতীক নিয়ে ভোটের মাঠে থাকবেন বলে জানিয়েছেন। যেহেতু তফসিল ঘোষণা হয়নি সেহেতু দলীয় ভাবে প্রার্থী দিতে সমস্যা না হবার কথা বলে নিজের জীবন বৃত্তান্ত তৈরীর জন্য প্রস্তুতি নেন আবুল হোসেন। জানা গেছে আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচন আগামী মার্চ মাস থেকে পঞ্চম ধাপে অনুষ্ঠিত । সেই লক্ষে ক্ষমতাসীন আ”লীগ দলীয় প্রার্থীদের তালিকা জমা নেয় গত ২৯শে জানুয়ারি। ইতিপূর্বেই ভাইস চেয়ারম্যান পদে ১০জন তালিকা জমা দেন এবং আবুল হোসেনকে দিয়ে হবে ১১জন প্রার্থী ।

আবুল হোসেন জানান আ”লীগ বৃহত্তর দল একাধিক প্রার্থী থাকাটাই স্বাভাবিক । আমি দীর্ঘ ১৭বছর উপজেলার পাচন্দর ইউপির যুবলীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেছি। ১৯৯১ থেকে ৯৬ এবং ২০০১ সাল থেকে ২০০৬ সাল বিএনপি জামাত সরকারের সময় আমার নামে ৩৯টি মামলা দায়ের করা হয় । রিমান্ডে নেয়া হয়েছে দুই সময়ে ১৪বার । জেল খাটতে হয়েছে একাধিকবার। শুধুমাত্র যুবলীগের দায়িত্বে ছিলাম বলে রাজনৈতিক প্রতিহিংসায় দেয়া হয়েছিল মামলা। বর্তমানে সব মামলা থেকে খালাস পেয়েছি। মারাত্মক দূর দিনেও কর্মীদের পাশে থেকেছি। তৃণমূল নেতাকর্মীরা এসব বিবেচনায় নিলে অবশ্যই দলীয় মনোনায়ন পাবার ব্যাপারে আসাবাদি। গত ইউপি ভোটে মনোনায়ন চেয়েছিলাম পাইনি। আবুল হোসেনের বাড়ি উপজেলার পাচন্দর ইউপির চাদপুরগ্রামে। সে মৃত নাদের আলীর পুত্র ।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published.